পাসপোর্ট সিগনেচার সংক্রান্ত তথ্য এবং পাসপোর্টের স্বাক্ষর পরিবর্তন

আমাদের মধ্যে এরকম অনেকেই রয়েছেন যারা কিনা পাসপোর্ট সিগনেচার সংক্রান্ত তথ্য এবং পাসপোর্টের স্বাক্ষর পরিবর্তন সংক্রান্ত যাবতীয় তথ্য সংগ্রহ করে নিতে ইচ্ছুক।

কিংবা যে কেউ যদি পাসপোর্ট এর সিগনেচার পরিবর্তন করতে চান এবং একই সাথে পাসপোর্ট সিগনেচারের সাথে যদি আপনার জাতীয় পরিচয় পত্র সিগনেচারের মিল খুঁজে না পাওয়া যায়, তাহলে সে ক্ষেত্রে কি কোন সমস্যা হতে পারে?

আপনার জাতীয় পরিচয় পত্রের সাথে আপনার পাসপোর্ট এর স্বাক্ষর যদি না মিলে সেক্ষেত্রে পাসপোর্ট এর স্বাক্ষর পরিবর্তন করা কি বাধ্যতামূলক? এই সংক্রান্ত যে সমস্ত বিষয়াদি রয়েছে, সেগুলো এখান থেকে জেনে নিতে পারবেন।

আইডি কার্ডের সাথে পাসপোর্ট এর সিগনেচার যদি না মিলে তাহলে করণীয় কি?

আপনি যদি আপনার আইডি কার্ডে একটি সিগনেচার এবং আপনার যে পাসপোর্ট রয়েছে সেই পাসপোর্টে ভিন্ন একটি সিগনেচার দেন সে ক্ষেত্রে আপনার করণীয় কি?

এই দুটি সিগনেচারের মধ্যে যদি গরমিল থাকে এবং কোন মিল যদি খুঁজে না পাওয়া যায় সে ক্ষেত্রে পাসপোর্ট সিগনেচারকে পরিবর্তন করা বাধ্যতামূলক? আর পরিবর্তন না করলে কি এতে কোন সমস্যা হবে?

এর সঠিক উত্তর হল, যদি আপনার আইডি কার্ডের সিগনেচার এবং পাসপোর্ট এর সিগনেচার না মিলে সেক্ষেত্রে কোন রকমের সমস্যা হবে না। অর্থাৎ দুই নিবন্ধনে যদি আপনার দুই রকমের সিগনেচার থাকে তাহলে কোন রকমের সমস্যা হবে না।

সেজন্য এটা নিয়ে কোন রকমের চিন্তা করার প্রয়োজন নেই। তবে যে কারো জন্য এই বিষয়টি মাথায় রাখা জরুরি যে আমি কেন দুইটি নিবন্ধনে দুই রকমের স্বাক্ষর দেব? যদিও বর্তমান সময়ে এটা নিয়ে কোনো রকমের সমস্যা হচ্ছে না, তাও যদি পরবর্তীতে সমস্যা হয় সেটাও একটা বিষয় হতে পারে।

সেজন্য যে কোন রকমের ডকুমেন্টে আপনি যখন সিগনেচার দিবেন তখন একই রকমের সিগনেচার দেওয়ার চেষ্টা করবেন। যাতে করে পরবর্তীতে সিগনেচার নিয়ে কোন রকমের সমস্যা হলে আপনি এই সমস্যা থেকে মুক্ত হতে পারেন।

পাসপোর্ট এর স্বাক্ষর পরিবর্তন করা কি যাবে?

এবার আপনি যদি আপনার আইডি কার্ডের সাথে মিল রেখে পাসপোর্ট এর স্বাক্ষর পরিবর্তন করতে চান তাহলে পাসপোর্ট এর স্বাক্ষর পরিবর্তন করা কি যাবে?

পাসপোর্ট এর স্বাক্ষর পরিবর্তন করা যাবে কিনা? এর সঠিক উত্তর হল: হ্যাঁ। আপনি চাইলে পাসপোর্টের স্বাক্ষর পরিবর্তন করতে পারবেন। তবে পাসপোর্ট এর স্বাক্ষর পরিবর্তন করার জন্য আপনাকে বেশ ঝামেলার মধ্যে পড়তে হবে।

ঝামেলা বলতে, আপনাকে পুনরায় নতুন করে পাসপোর্ট এর জন্য আবেদন করতে হবে। এবং এটি অত্যন্ত ঝামেলার একটি বিষয়। তবে সর্বাধিক রিকমেন্ড থাকবে যদি পাসপোর্ট এর সিগনেচারে কোন গরমিল থাকে তাহলে সেটি সেভাবেই রেখে দিন।

কারণ, পাসপোর্ট এর সিগনেচারে গরমিল হলে সেটা কোন সমস্যার কারণ হবে না। তবে তারপরেও যদি আপনি পরিবর্তন করতে চান তাহলে পুনরায় পাসপোর্ট এর জন্য আবেদন করে এই সিগনেচার পরিবর্তন করে নতুন একটি সিগনেচার সম্পৃক্ত করে নিতে পারবেন।

পাসপোর্ট সিগনেচার সংক্রান্ত তথ্য এবং পাসপোর্টের স্বাক্ষর পরিবর্তন সংক্রান্ত যে তথ্য আপনার জেনে রাখা প্রয়োজন ছিল, সেগুলো সম্পর্কে উপরে বিস্তারিতভাবে আলোচনা করা হয়েছে।

এছাড়াও, পাসপোর্ট সিগনেচার সংক্রান্ত তথ্য এবং পাসপোর্টের স্বাক্ষর পরিবর্তন সংক্রান্ত কোনো রকমের জিজ্ঞাসা থেকে থাকলে আপনি চাইলে সেটি কমেন্ট করে আমাদেরকে জানাতে পারেন।

6 thoughts on “পাসপোর্ট সিগনেচার সংক্রান্ত তথ্য এবং পাসপোর্টের স্বাক্ষর পরিবর্তন”

Leave a Comment

আপনার ই-মেইল এ্যাড্রেস প্রকাশিত হবে না। * চিহ্নিত বিষয়গুলো আবশ্যক।

11 + nine =

Scroll to Top